রাণীশংকৈলে যথাযথ মর্যাদায় নারী দিবস উদযাপন

0

আনোয়ার হোসেন আকাশ,
রাণীশংকৈল (ঠাকুরগাঁও) প্রতিনিধি:

আজ ৮ মার্চ, আন্তর্জাতিক নারী দিবস। নারীর সম-অধিকার প্রতিষ্ঠায় ১৯১৪ সাল থেকে বিভিন্ন দেশ দিবসটি পালন করে আসছে। ১৯৭৫ সাল থেকে জাতিসংঘ দিনটি ‘আন্তর্জাতিক নারী দিবস’ হিসেবে পালন করছে।

সারাদেশের মতো ঠাকুরগাঁও রাণীশংকৈলে যথাযোগ্য মর্যাদায় দিবসটি পালন করা হয় । এবার নারী দিবসের প্রতিপাদ্য- ‘করোনাকালে নারী নেতৃত্ব, গড়বে নতুন সমতার বিশ্ব’।

১৮৫৭ সালের ৮ মার্চ। সে সময় যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে একটি সুচ কারখানার নারী শ্রমিকরা দৈনিক শ্রম ১২ঘণ্টা থেকে কমিয়ে আট ঘণ্টায় আনা, ন্যায্য মজুরি এবং কর্মক্ষেত্রে সুস্থ ও স্বাস্থ্যকর পরিবেশ নিশ্চিত করার দাবিতে সোচ্চার হয়েছিলেন। আন্দোলন করার অপরাধে সে সময় গ্রেফতার হন অসংখ্য নারী। কারাগারে নির্যাতিত হন অনেকেই।

এর তিন বছর পরে ১৮৬০ সালের একই দিনে গঠন করা হয় ‘নারী শ্রমিক ইউনিয়ন’। ১৯০৮ সালে পোশাক ও বস্ত্রশিল্পের কারখানার প্রায় দেড় হাজার নারীশ্রমিক একই দাবিতে আন্দোলন করেন। অবশেষে আদায় করে নেন দৈনিক আট ঘণ্টা কাজ করার অধিকার।

১৯১০ সালের এই দিনে ডেনমাকের্র কোপেনহেগেনে অনুষ্ঠিত আন্তর্জাতিক সমাজতান্ত্রিক সম্মেলনে জার্মানির নেত্রী ক্লারা জেটকিন ৮ মার্চকে আন্তর্জাতিক নারী দিবস হিসেবে ঘোষণা করেন। এরপর থেকেই সারাবিশ্বে দিবসটি আন্তর্জাতিক নারী দিবস হিসেবে পালিত হয়ে আসছে।

জাতিসংঘ ১৯৭৫ সালে আন্তর্জাতিক নারীবর্ষে ৮ মার্চকে আন্তর্জাতিক নারী দিবস হিসেবে পালন করা শুরু করে। এর দুই বছর পর ১৯৭৭ সালে জাতিসংঘ দিনটিকে আনুষ্ঠানিকভাবে আন্তর্জাতিক নারী দিবস হিসেবে স্বীকৃতি দেয়।

এরই ধারাবাহিতায় ঠাকুরগায়ের রানীশংকৈল মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের আয়োজনে সোমবার (৮মার্চ) সকাল সাড়ে ১১টায় উপজেলা পরিষদ হলরুমে “করোনাকালে নারী নেতৃত্ব গড়বে নতুন সমতার বিশ্ব “এই প্রতিপাদ‍্যকে সামনে রেখে যথাযগ‍্য মর্যদায় আন্তর্জাতিক নারী দিবস পালন করা হয় । নারী দিবস উপলক্ষে দিবসটির তাৎপর্য নিয়ে বিস্তর আলোচনা করা হয়।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার সোহেল সুলতান জুলকার নাইন কবির স্টিভ’র সভাপতিত্বে আলোচলা সভায় শুভেচ্ছা বক্তব‍্য রাখেন, মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা আবিদা সুলতানা।
প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব‍্য রাখেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম‍্যান শাহরিয়ার আজম মুন্না, বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সাবেক সাংসদ ইয়াসিন আলী, নব নির্বাচিত পৌরমেয়র আলহাজ্ব মোস্তাফিজুর রহমান, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান শেফালী বেগম, আ:লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদিকা ফরিদা ইয়াসমিন, বীর মুক্তিযোদ্ধা হবিবর রহমান, ইএসডিও ম‍্যানেজার খাইরুল ইসলাম, প্রেসক্লাব সভাপতি ফারুক আহম্মেদ, আনোয়ারুল ইসলাম প্রমুখ।

আলোচলা অনুষ্ঠানে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের শতাধিক নারী, ছাত্রী,সাংস্কৃতিক ব‍্যাক্তিত্ব সহ বিভিন্ন সরকারী কর্মকতা কর্মচারী প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিকস মিডিয়ার সাংবাদিক উপস্হিত ছিলেন ।
শেখ হাসিনার বারতা নারী পুরুষ সমতা এই প্রতিপাদ‍্য অঙ্গীকারকে অগ্রাধিকার দিয়ে বিভিন্ন বক্তারা তাদের বক্তব‍্য রাখেন।

দিবসটি উপলক্ষে নারী বিষয়ক কর্মকর্তা আবিদা সুলতানা স্বাগত বক্তব্যে বলেন- জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় জীবনের সকল ক্ষেত্রে নারীর সম অধিকারের বিষয়টি সংবিধানে নিশ্চিত করেছেন। নারী পুরুষের যৌথ প্রচেষ্টায় বিনির্মাণ হবে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ।

উল্লেখ: বিভিন্ন সংগঠন ব্যানার ফেস্টুন ও পোস্টারের মাধ্যমে দিবসটি সম্পর্কে সচেতনতা সৃষ্টির উদ্যোগ নিতে দেখা গেছে

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে